আমি এক বাবা বলছি

0
53

আমি এক বাবা বলছি

———

আমি এক বাবা বলছি-
বাংলাদেশের এক প্রান্ত থেকে
কন্যার দিকে থাকালে আশঙ্কায়
উদ্বেগে, ভয়ংকর হতাশায়
শুধু শঙ্কা দেখছি:
আমি বাবা বলছি।

আমি আপনাদের একজন বলছি-
জন্মের পূর্বে মুক্তিযুদ্ধ দেখিনি সত্য
তবে বীভৎসতায়, ধর্ষণ, নির্যাতনে
পাক-হানাদারের দস্যুতা, নৃশংসতা
নির্মমতা, নির্লজ্জতার কথা শুনেছি:
১৬ ডিসেম্বর বিজয়ের গল্প শুনেছি:
ভেবেছি, ২৫ মার্চরাতে শুরু হওয়া
৯মাসের কালো অধ্যায় সমাপ্ত বুঝি;
স্বাধীন পতাকা আমাদের হলোঃ
যুদ্ধের বিজয়ী বাংলাদেশ আমার:
স্বাধীনতার রাজটীকায় তেজদীপ্ত
টেকনাফ থেকে তেতুলিয়া আমার;
অসংখ্যবার আশ্বস্ত হয়েছি;
আমি স্বাধীন বাংলাদেশি বলছি।

আমি হতভম্ব হয়ে বলছি
স্বাধীন বাংলা হায়েনাদের অভয়ারণ্য
মা, কন্যা, ভগিনিরা আজ লুণ্ঠিত
ধর্ষকের সেঞ্চুরি উল্লাসে যেদিন-
আমার ক্যাম্পাস অভিশপ্ত হয়েছিল;
কন্যা শিশু থেকে বৃদ্ধার কান্নায়
ভারী হয় নিশ্চুপ দর্শকের কর্ণকুহর:
প্রতিবাদ করিনি আমি পুরুষ হয়েও
অপারগতার দায়ভারে, লজ্জায়
নিজের প্রতি ঘৃণায় লুকিয়ে হেঁটেছি;
কখনো রাজপথে নেমমে বিচার চাইনি,
কখনো লিখিনি ‘ধর্ষকদের কোন দল নেই’:
কখনো বয়কট করিনি ধর্ষক নামের
পুংলিঙ্গ দাবি করা পিশাচদের..
ততদিনে বাড়লো বেপরোয়া পশুরা;
ততদিনে অনিরাপদ হয়ে উঠলো যত
প্রতিষ্টান, সড়ক, বাসভবন আমার;
আর এ গহীন জঙ্গলে সাঁতরিয়ে
আমি এক ব্যর্থ পুরুষ বলছি….

আমি এখন এক বাবা বলছি-
যখন কন্যার হাঁটার পথে পঙ্খিল
পাশবিক কিছু মানুষকে দেখি,
ধর্ষকের দুঃসাহসে দুঃস্বপ্নে মরি,
তখন আমারও আতঙ্ক হয়, ভয়ও;
রক্ত মাথায় উঠে, ক্ষোভ, প্রতিবাদও
প্রতিশোধের আইন হাতে নিয়ে
গণপিটুনিতে হত্যা করার ইচ্ছা
সুপ্ত থাকেনা আমার; হে দেশবাসী;
আমি এক বিচার প্রার্থী বলছি।

আমি বিচারপ্রার্থী বলছি
ধর্ষিতার বিচার, কারো কন্যা কিংবা, মাতা, ভগিনির উপর নির্যাতনের;
রাজপথে, দেয়ালে কিংবা ইন্টারনেটে
সূচিত হোক আজ প্রতিবাদের ঝড়:
বিচার হোক সর্বোচ্চ শাস্তির;
কন্যাদের তরে হোক এ বিশ্ব, শান্তির
বাসযোগ্য, নিরাপদ এক বাসভূমি;

আমরা ধিক্কার জানি্রযে বিচার চাইছি
আমি আইনের সকল সেবকদের বলছি:
ধর্ষকদের কোন দল না থাকুক,
না থাকুক জেলা বা অঞ্চলকে
অপমান করার দুঃসাহসও;
তাদের কোন বন্ধু না থাকুক,
না হোক কারো প্রতিবেশি সে,
তার পরিচয় হোক, নরাধম “ধর্ষক’;

আমি তীব্র প্রতিবাদেমুখর পিতা
আমি এক বিচারপ্রার্থী বলছি,
নিরাপদ পরিবেশ, বাংলাদেশ চেয়ে
এক কন্যার বাবা বলছি।

———
মোঃ নাজিম উদ্দিন
০৫ অক্টোবর, ২০২০